বিরল সূর্যগ্রহণ আজ, সঙ্গে খালি চোখে দেখা যাবে জ্বলন্ত গ্রহদেরও

বিরল সূর্যগ্রহণ আজ, সঙ্গে খালি চোখে দেখা যাবে জ্বলন্ত গ্রহদেরও

বছরের প্রথম ও বিরল সূর্যগ্রহণ দেখবে বিশ্বের মানুষ। এরই মধ্যে বিষয়টি বিশ্বজুড়ে আলোড়ন সৃষ্টি করেছে। সূর্য ও পৃথিবীর মধ্যকার কক্ষপথে চাঁদ এসে পড়লে পৃথিবীর একটা অংশ সম্পূর্ণ ঢেকে যায় সেই ছায়ায়। আর এতেই অন্ধকারে দিন হয়ে যায় রাতের মতো। মহাজাগতিক এ ঘটনাকে বলে পূর্ণগ্রাস সূর্যগ্রহণ।

আজ সোমবার (৮ এপ্রিল) এমনই এক বিরল পূর্ণগ্রাস সূর্যগ্রহণের সাক্ষী হতে যাচ্ছে বিশ্ব।

আজ মহাজাগতিক এই সূর্যগ্রহণের সাক্ষী হবে বিশ্ববাসী। পূর্ণগ্রাস সূর্যগ্রহণের সময় কয়েক মুহূর্তের জন্য দিনের বেলাতেও অন্ধকারে ঢেকে যাবে পৃথিবী।

জ্যোতির্বিদরা বলছেন, এ বছর পূর্ণগ্রাস সূর্যগ্রহণের সঙ্গে আরও একটি বিরল দৃশ্য দেখা যাবে। এদিন খালি চোখে সরাসরি দেখা যাবে জ্বলন্ত গ্রহদের, যাদের দেখা মেলাটা খুবই বিরল ঘটনা।

মহাজাগতিক এই দৃশ্য সরাসরি দেখা যাবে শুধুমাত্র যুক্তরাষ্ট্র, কানাডা এবং মেক্সিকো থেকে। স্থানীয় সময় ১১টা ৭ মিনিটে মেক্সিকোর প্রশান্ত মহাসাগরীয় উপকূলে দেখা যাবে প্রথম সূর্যগ্রহণ। এরপর চাঁদের ছায়া আস্তে আস্তে সরে যাওয়ার কারণে যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাসে স্থানীয় সময় দুপুর ১টা ২৭ মিনিটে দৃশ্যমান হবে সূর্যগ্রহণ।

এদিন ক্যারিবীয় অঞ্চলের বিভিন্ন দেশের পাশাপাশি কলম্বিয়া, ভেনেজুয়েলা, স্পেন, যুক্তরাজ্য, আয়ারল্যান্ড, পর্তুগাল ও আইসল্যান্ডের নির্দিষ্ট স্থান থেকে আংশিক সূর্যগ্রহণ দেখা যাবে।

এদিকে, পূর্ণগ্রাস সূর্যগ্রহণের এ দৃশ্য দেখতে প্রস্তুতি নিচ্ছে তিন দেশের লাখ লাখ বাসিন্দা। যেসব স্থান থেকে সরাসরি গ্রহণ দেখা যাবে, সেসব জায়গায় ছুটে যাচ্ছেন অসংখ্য মানুষ। তাই যেকোনো ধরনের দুর্ঘটনা এড়াতে জারি করা হয়েছে সতর্কতা।

সূর্যগ্রহণের সময় খালি চোখে সরাসরি সূর্যের দিকে তাকানো থেকে বিরত থাকার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। এতে চোখের মারাত্মক ক্ষতি, এমনকি স্থায়ী অন্ধত্বও হওয়ার আশঙ্কাও থাকে। তাই সূর্যগ্রহণ দেখতে সৌর ফিল্টার বা বিশেষ চশমা ব্যবহারের আহ্বান জানানো হয়েছে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *