হামাস ফের প্রত্যাখ্যান করল ইসরাইলের প্রস্তাব

হামাস ফের প্রত্যাখ্যান করল ইসরাইলের প্রস্তাব

ইসরাইলি জিম্মিদের মুক্তির বিষয়ে নতুন প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করেছে হামাস। সংঘাত বন্ধে ও গাজা থেকে সব ইসরাইলি সেনা প্রত্যাহারে কার্যকর নয়, এমন কোনো চুক্তি মেনে নেওয়া হবে না বলে জানিয়েছে হামাস।

সোমবার (২৯ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় ইসরাইলের দেওয়া এ প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করেন ফিলিস্তিনের স্বাধীনতাকামী সশস্ত্র গোষ্ঠীটি। খবর টাইমস অব ইসরাইলের।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে— হামাস জানিয়েছে যে, কোনো বিনিময় চুক্তি প্রস্তাবের আগে অবশ্যই গাজায় ইসরাইলি হামলা বন্ধ করতে হবে এবং পুরো অঞ্চল থেকে তাদের সেনা প্রত্যাহার করতে হবে।

অন্যদিকে হামাসের কাসাম ব্রিগেডের এক উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা তাহের আল-নুন জানিয়েছেন, হামাস গাজায় যুদ্ধ বন্ধে প্রস্তুত, তবে সেটি সম্পূর্ণ যুদ্ধবিরতি হতে হবে, সাময়িক যুদ্ধবিরতির কোনো প্রস্তাবে এটি সম্ভব নয়।

সোমবার সন্ধ্যায় হামাস একটি বিবৃতি দেয়— এতে তারা স্পষ্ট করে জানায় যে, কোনো ধরনের বিরতির শর্ত হলো— ইসরাইলকে তার সব সেনাকে প্রত্যাহার করে নিতে হবে এবং যুদ্ধ বন্ধ করতে হবে। এর পর জিম্মিদের মুক্তির ব্যাপারে আলোচনা হবে।

এ ছাড়া হামাসের জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা তাহের আল-নুন বার্তা সংস্থা এএফপিকে বলেছে, ‘আমরা প্রথমে যা নিয়ে কথা বলছি সেটি হলো— একটি পূর্ণ ও বিস্তৃর্ণ যুদ্ধবিরতি। কোনো অস্থায়ী সাময়িক যুদ্ধবিরতি নয়। যখন হামলা বন্ধ হবে; জিম্মি মুক্তিসহ অন্য সব বিষয় নিয়ে আলোচনা করা যাবে।’

যুক্তরাষ্ট্রের সংবাদমাধ্যম এনবিসি জানিয়েছে, নতুন জিম্মি চুক্তির প্রস্তাবের বিরুদ্ধে সরাসরি হামাস এ বিবৃতি দিয়েছে কিনা সেটি স্পষ্ট নয়। তবে এটি সত্যি যে, নতুন এ চুক্তির প্রস্তাবে স্থায়ী যুদ্ধবিরতির কথা বলা হয়নি। আবার এটি পুরোপুরি বাদও দেওয়া হয়নি।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *